আমি ধর্ম পালন করি, ধর্ম নিয়ে রাজনীতি করেন খালেদা: প্রধানমন্ত্রী

আমি ধর্ম পালন করি এবং ধর্ম মেনে চলি কিন্তু ধর্ম নিয়ে রাজনীতি করি না উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বিএনপি এবং খালেদা জিয়াই ধর্ম নিয়ে রাজনীতি করেন। ধর্মের দোহাই দিয়ে খালেদা এবং তার লোকেরাই বায়তুল মোকাররম মসজিদে আগুন দিয়েছে। শত শত কোরআন শরীফ পুড়িয়েছে। মসজিদে কোরআন শরীফ পড়া অবস্থায় আমার কৃষক লীগের নেতাকে হত্যা করেছে। হাসিনা ধর্ম নিয়ে রাজনীতি করছে খালেদা জিয়ার এই বক্তব্যের জবাবে প্রধানমন্ত্রী এসব বলেন।



তিনি আজ বুধবার রাতে গণভবনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সংসদের সভায় সভাপতি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, কওমী মাদ্রাসার সনদের স্বীকৃতি প্রদানের ঘোষণা দিয়েছি বলেই ওনার গায়ে জ্বালা ধরে গেছে। তিনি বলেন, ১৪ লাখ শিক্ষার্থী কওমী মাদ্রাসায় পড়ছে, ৭৫ হাজার কওমী মাদ্রাসা আমাদের দেশে। তাদের ৬টি বোর্ড, কারিকুলামের কোনো ঠিক নেই। তারা সবাই নিজের মতো কারিকুলাম ব্যবহার করেন। এদের কোনো সরকারি স্বীকৃতি ছিল না। যে কারণে এই সার্টিফিকেট নিয়ে তারা উচ্চশিক্ষাসহ দেশ-বিদেশে লেখাপড়া বঞ্চিত ছিল, কাজ পেত না, চাকরি পেত না।


শেখ হাসিনা বলেন, এই লাখ লাখ শিক্ষার্থীর ভবিষ্যৎ যাতে অন্ধকারাচ্ছন্ন না হয় সেজন্যই আমি সরকারের আসার পরই আলেম-ওলামাদের নিয়ে দীর্ঘদিন বৈঠকের পর এখন তারা একটা সমঝোতায় এসেছে।… এখানে তার দুঃখটা কিসের?



খালেদা জিয়া বুধবার বিকেলে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর সাম্প্রতিক ভারত সফরের উপর আনুষ্ঠানিকভাবে দলীয় প্রতিক্রিয়া প্রকাশ করার সময় বলেন প্রধানমন্ত্রী এখন ধর্ম নিয়ে রাজনীতি করছেন।


সংবাদ সম্মেলনে শেখ হাসিনার এই সফরকে নিষ্ফল উল্লেখ করে খালেদা জিয়া আরও বলেন, সরকার শূন্য হাতে শুধু আশ্বাস নিয়ে ফিরে এসেছেন। বিএনপি নেত্রীর বক্তব্যের কঠোর সমালোচনা করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, খালেদা জিয়া নিজের চোখ বন্ধ করে অন্ধ সেজেছেন বলেই ভারত সফরে তার সরকারের সাফল্য দেখতে পারছেন না। প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা ভারত থেকে সাড়ে ৪ বিলিয়ন ইউএস ডলার লাইন অব ক্রেডিট এনেছি মাত্র ১ শতাংশ সুদে। আমরা ধার এনেছি এ টাকা। এ অর্থ দিয়ে প্রয়োজনীয় বিদ্যুৎ, এলএনজি, এলপিজি, ডিজেল আমরা ক্রয় করব।



তিনি বলেন, এখন এটাকেও যদি বলা হয় যে কিছুই পায় নাই তাহলে ভাবখানা এমন যে, আমরা ভিক্ষা চাইতে গিয়েছিলাম, যে কিছুই পায়নি।ভারত-বাংলাদেশের বন্ধুত্ব বায়বীয়, খালেদা জিয়ার এমন মন্তব্যের সমালোচনা করে শেখ হাসিনা প্রশ্ন তোলেন আমার ভারত সফর, এর আগে নরেন্দ মোদীর বাংলাদেশ সফর, তারও আগে মনমোহন সিং সফর করে গেলেন, ভারতীয় সংসদে ল্যান্ড বাউন্ডারি চুক্তি অনুমোদিত হল, কার্যকর হলো– এসব কি তাহলে বায়বীয়?

loading…



প্রধানমন্ত্রী বলেন, বায়বীয় বলতে খালেদা জিয়া কি বোঝাচ্ছেন তার ব্যাখ্যাটা যদি জাতির কাছে দিতেন। শেখ হাসিনা বলেন, খালেদা জিয়া বলেছেন আমার এই সফরের মধ্য দিয়ে দেশবাসী নাকি কিছুই অর্জন করতে পারে নাই! এটাও খালেদা জিয়ার বক্তব্য। এই যে আমরা বিদ্যুৎ, গ্যাস, এলএনজি, ডিজেল, ৪ দশমিক ৫ বিলিয়নের লাইন অব ক্রেডিট, ডিফেন্স সামগ্রী কেনাকাটায় ৫শ মিলিয়ন ডলার নিয়ে আসলাম। এটা কার কাজে লাগবে, সবই দেশ এবং দেশের মানুষের কাজে লাগবে। এগুলো আমি নয়, দেশবাসী ভোগ করবে।








আরও জানতে VIDEO টি দেখুন.চানেলটি SUBSCRIBE করতে ভুলবেননা PLEASE::

loading...